অভিজ্ঞান রায়চৌধুরীর সাথে কল্পবিজ্ঞান নিয়ে আলোচনা

বর্তমান বাংলা সাহিত্যের সবথেকে সফল ও ধারাবাহিক কল্পবিজ্ঞান রচয়িতা অভিজ্ঞান রায়চৌধুরীর সাথে কল্পবিজ্ঞান নিয়ে আলোচনা

অনুলিখনঃ দীপ ঘোষ ও সন্দীপন গঙ্গোপাধ্যায় 

অলংকরণ – দেবজ্যোতি ভট্টাচার্য্য

বাংলা কল্পবিজ্ঞান নিয়ে সাম্প্রতিক একটা উৎসাহ বেশ চোখে পড়ছে। নানা ধারা উপধারার থিম বা প্লট নিয়ে এক স্বকীয় বৈশিষ্ট্য বা সিগনেচার সে খুঁজে পেয়েছে [আরো পড়ুন]

Read more

ভলতেয়ারের ভিনগ্রহী

ভলতেয়ারের ভিনগ্রহী

লেখক – সন্দীপন গঙ্গোপাধ্যায়

অলংকরণ – সন্দীপন গঙ্গোপাধ্যায়

“There are truths which are not for all men, nor for all times.”

-–- Voltaire’s Letter to François-Joachim de Pierre, cardinal de Bernis (23 April 1764)

ষ্টাদশ শতাব্দীর প্রারম্ভিক অধ্যায়, সময়টা ছিল যুক্তি তর্কের বদলে প্রজন্মান্তরের জগদ্দল চিন্তার ভার বয়ে চলার। চার্চ এবং রাষ্ট্র তাদের পেশীশক্তির আস্ফালনে তখনও টুঁটি টিপে রেখেছে সাধারণ মানুষের। [আরো পড়ুন]

Read more

ক্লাই-ফাই সিনেমা – রূপোলী আলোয় শেষের সেদিন

সয়লেন্ট গ্রিন ছায়াছবির এক আইকনিক ফ্রেম

Det. Thorn: Ocean’s dying, plankton’s dying… it’s people. *Soylent Green is made out of people.* They’re making our food out of people. Next thing they’ll be breeding us like cattle for food. You’ve gotta tell them. You’ve gotta tell them!

Hatcher: I promise, Tiger. I promise. I’ll tell the Exchange.

Det. Thorn: You tell everybody. Listen to me, Hatcher. You’ve gotta tell them! Soylent Green is people! We’ve gotta stop them somehow!  

                                                                                  — Soylent Green (1973)    

০২২ এর পৃথিবী যেখানে প্রযুক্তির [আরো পড়ুন]

Read more

আঁধারের নিঃশ্বাস

“আগের জীবনটা আমার কাছে এখন ছায়া ছায়া একটা স্বপ্নের মতো। কাউকে বোঝানোর কোন দায় নেই আমার। শুধু এই অসীম নক্ষত্র পথের বিস্তৃতির মাঝখানে দাঁড়িয়ে নিজের খেয়ালেই বলে যাচ্ছি এই কথাগুলো। আজ মনে হয় এ যেন বিগত জীবনের ঘটনা।”

     “আমার বিশ্ববরেণ্য শিক্ষক সুনীতিবাবুর নির্দেশে গ্রামগঞ্জের নানা প্রবাদ প্রবচন বিশেষ করে যার মধ্যে ভয় বা আশঙ্কার বীজ লুকিয়ে আছে সেসব নিয়ে [আরো পড়ুন]

Read more

চলচ্চিত্র সমালোচনা – কিন্‌ জা জা (১৯৮৬)

মেরিকা আর সোভিয়েত ইউনিয়ন এই দুই সুপার পাওয়ারের মধ্যে ঠান্ডা যুদ্ধের উত্তাপ তখন প্রায় ঠান্ডা হয়ে আসছিল। রেগন সাহেব তার স্ট্র্যাটেজিক ডিফেন্সিভ বা ‘স্টার ওয়র্স’ প্রজেক্ট নিয়ে মানুষের মনে ভয়ের আবহ তৈরী করে দিতে পেরেছিলেন বেশ সাফল্যের সঙ্গে। সেই সময় ১৯৮৬ সাল নাগাদ তদানীন্তন সোভিয়েত আমলে মস ফিল্ম স্টুডিও থেকে ‘কিন্‌ জা জা’ নামে একটা ছায়াছবি [আরো পড়ুন]

Read more

চলচ্চিত্র সমালোচনা – ফারেনহিট ৪৫১ (১৯৬৬)

“To learn to read is to light a fire; every syllable that is spelled out is a spark.” — Victor Hugo

ওরা যেন প্রশ্ন না করে? না যেন জানতে চায় এই প্রতিদিনের সামাজিক অস্তিত্বের নিয়ন্তাকে … যদি রাষ্ট্রের ভাবনা এমনই হয়? যদি সে টুঁটি টিপে রাখে মুক্তচিন্তার তাহলে তো স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে বলার জন্য কোন স্বরই অবশিষ্ট থাকবে না। আর বই ছাড়া এই মুক্তবুদ্ধি ছড়াবে না কোনমতেই। তাই পোড়াও বই। এই প্রায় ডিস্টোপিয়ান আবহে রে ব্র্যাডবেরির [আরো পড়ুন]

Read more

প্রহর শেষের আলো

It is a subject also of additional interest to the author that this story was begun in the majestic region where the scene is principally laid, and in society which cannot cease to be regretted. I passed the summer of 1816 in the environs of Geneva. The season was cold and rainy, and in the evenings we crowded around a blazing wood fire, and occasionally amused ourselves with some German stories of ghosts, which happened to fall into our hands. These tales excited in us a playful desire of imitation. Two other friends (a tale from the pen of one of whom would be far more acceptable to the public than anything I can ever hope to produce) and myself agreed to write each a story founded on some supernatural occurrence.

The weather, however, suddenly became serene; and my two friends left me on a journey among the Alps, and lost, in the magnificent scenes which they present, all memory of their ghostly visions. The following tale is the only one which has been completed.

[আরো পড়ুন]

Read more

চলচ্চিত্র সমালোচনা – মেট্রোপলিস্‌ (১৯২৭)

মেট্রোপলিস্‌ – ছায়ার আয়নায় ভাবীকালের ছবি

মহৎ কল্পবিজ্ঞানের উপস্থাপনা শুধুমাত্র তার বৈজ্ঞানিক ভিত্তির ওপরে নয় বরং অন্তর্নিহিত সমাজ–সচেতন, মানবিক বক্তব্যে ফুটে ওঠে। তা সে সাহিত্য, সিনেমা যে মাধ্যমই ধরি না কেন। কালের গর্ভেই এই সৃষ্টির উপাদান মজুদ থাকে। বিংশ শতাব্দীর সূচনাটা ছিল এমন এক ক্রান্তিকাল। সেই সময় বিজ্ঞানের ক্ষেত্রে যেমন ক্লাসিকাল পদার্থবিদ্যার [আরো পড়ুন]

Read more

মঙ্গলের রাণী থেকে কিন্-জা-জা’ র পথে (সোভিয়েত সাই-ফি সিনেমার সংক্ষিপ্ত ইতিবৃত্ত)

৯২৪ সাল। মাত্র দুবছর আগে রক্তস্নাত গৃহযুদ্ধের শেষে এক বিরাট ভৌগোলিক পরিসরে তৈরী হয়েছে নতুন ধরনের সমাজ রাজনীতির পরীক্ষাগার: মানুষের সরকার – যাকে প্রথম দিন থেকেই পরীক্ষা দিতে হয়েছে কায়েমী, বাজারমুখী শক্তিদের বিরুদ্ধে যার সহায়ক ছিল বেশ কিছু বিদেশী রাষ্ট্র। শ্বেত আর লাল সোভিয়েতের ওই ধুন্ধুমার সংগ্রামমুখর সময়টাতে কিন্তু আবার অন্য এক ধরণের [আরো পড়ুন]

Read more

কল্পবিশ্ব ইভেন্ট – ১০০ বছর পরের কলকাতা!

১০০ বছর পরের কলকাতা

রূপসা ব্যানার্জী

     “তার মানে তোরা শেষ পর্যন্ত যাচ্ছিস? অত বারণ করলাম, কিন্তু শুনলি না। এইটুকু মেয়ে সবাইগার্জেন ছাড়াই গোয়া বেড়াতে চললি [আরো পড়ুন]

Read more

সন্দীপ রায়ের সঙ্গে বাস্তবের এক কল্প-আড্ডা

আড্ডার সময় আর স্থানঃ ১৪ ই আগষ্ট, ২০১৭, /১ বিশপ লেফ্রয় রোড (রায়বাড়ি)

কল্পবিশ্বের তরফে সাক্ষাৎকারেঃ বিশ্বদীপ দে, সৌমেন চট্টোপাধ্যায়, ঋদ্ধি গোস্বামী আর সন্দীপন গঙ্গোপাধ্যায়

ল্পলোকের সীমাহীন প্রান্তরে গিয়ে দেখি দূর থেকে মানিক রাজার সেই রেল গাড়ির হুইশল্‌টা ভেসে আসছে দূর থেকে [আরো পড়ুন]

Read more

চলচ্চিত্র আলোচনা – ভিলেজ অফ্‌ দ্য ড্যামড্‌ (১৯৬০) [সাইন্স-ফিকশন্‌ সিনে ক্লাবের উদ্বোধনী ছবি]

ভারতের প্রথম কল্পবিজ্ঞান ম্যাগাজিন ‘আশ্চর্য!’ এর উদ্যোগে স্থাপিত ‘সাইন্স ফিকশন সিনে ক্লাব’ ওই সময়ের নিরিখে একটা অনন্য নিরীক্ষার ফসল ছিল। ‘আশ্চর্য!’ [আরো পড়ুন]

Read more

চলচ্চিত্র আলোচনা – Close Encounters of the Third Kind (1977)

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের শেষদিকে ১৯৪৫ সালে হারিয়ে যাওয়া ফ্লাইট ১৯ এর এক ঝাঁক প্লেন খুঁজে পাওয়া গেল প্রায় তিরিশ বছর বাদে মেক্সিকোর কাছাকাছি সোনোরান মরুভূমিতে। ইঞ্জিন সম্পূর্ণ অক্ষত। এমনকি ম্যাপ আর চার্টগুলোও একদম ঠিকঠাক রাখা আছে। যে বৃদ্ধ মেক্সিকান ভদ্রলোক এই প্লেনগুলো রাতের অন্ধকারে নেমে আসতে দেখেছিলেন তার কথায়, ‘আলো জ্বলে উঠল মধ্যরাত্রিতে, [আরো পড়ুন]

Read more

কার্লোস সুচলওস্কি কন-এর সঙ্গে এক অমলিন সন্ধ্যা

বরটা দিয়েছিলেন শ্রদ্ধেয় শ্রী রণেন ঘোষ। গত ২রা জানুয়ারি, ২০১৭ তারিখ নাগাদ টাইমস্‌ অফ ইন্ডিয়ার ওই ছোট্ট খবরে উল্লেখ ছিল যে স্পেনীয় কল্পবিজ্ঞান লেখক কার্লোস সুচলওস্কি কন কলকাতায় বেড়াতে এসে ট্যাক্সিতে ফেলে আসা কিছু মালপত্র আবার ফিরে পেয়েছেন। রণেনবাবুর একান্ত ইচ্ছে ছিল যে আমরা কল্পবিশ্বের পক্ষ থেকে যেন ওঁর একটা সাক্ষাৎকার নিই। কিন্তু [আরো পড়ুন]

Read more

এক কল্প দুনিয়ার গ্রিনরুম

‘সেই বিষাক্ত জঙ্গলে তখন নতুন একটা নির্বিষ অঙ্কুর জেগে উঠছে ঠিক নউসকা’র হারানো গগলসের পাশে। ভয়ংকর ওহমেরাও জেনে গেছে যে তাদের এক নতুন বন্ধু হয়েছে যে তাদের এই অভিশাপ থেকে মুক্তি দেবে’। এভাবেই শেষ হয় অ্যানিমে (জাপানী ভাষায় অ্যানিমেশন) ছায়াছবি ‘নউসকা অফ্‌ দ্য ভ্যালি অফ্‌ দ্য উইন্ড’। এই শেষ কিন্তু আসলে একটা স্বপ্ন গড়ার কারখানার সূত্রপাত। [আরো পড়ুন]

Read more

ছায়াশরীর

৪ ফেব্রুয়ারি ১৯৩১, নিউ ইয়র্ক শহর। আবার একটা বড়ো লাইন সারি সারি মাথার। এই ধরনের সমারোহে অবশ্য এই শহরের নাড়ির যোগ হয়ে গেছে সেই দু-বছর আগে থেকে। অর্থনৈতিক মন্দার কারণে একের পর এক কলকারখানাগুলো বন্ধ। সরকারি উদ্যোগে রুটি বিতরণ চলেছে প্রায়ই, যার জন্য এই ধরনের লম্বা আর সর্পিল জন-অরণ্য! হয়তো সেই রকম কোনও এক লাইনই হবে এটা। আর একটু কাছে গিয়ে দেখে [আরো পড়ুন]

Read more
error: Content is protected !!